বয়স স্বল্পতার কারণে ৬ষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তির সুযোগ থেকে বঞ্চিত হতে যাচ্ছে গোপালগঞ্জের প্রাথমিক শিক্ষা শেষ করা অগণিত শিক্ষার্থী

Posted by


মনির মোল্যা, গোপালগঞ্জ : বয়স স্বল্পতার কারণে এবছরে ৬ষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তিচ্ছু অনেক শিক্ষার্থীই বঞ্চিত হতে যাচ্ছে। অনলাইন আবেদনে বয়স ১১+ না হওয়ায় এমন সমস্যায় পড়েছে তারা। আর এ নিয়ে দুশ্চিন্তায় পড়েছেন অভিভাবকগণও। সন্তানকে নিয়ে ছুটতে দেখা গেছে জেলা প্রশাসন ও জেলা শিক্ষা অফিসে। গোপালগঞ্জ জেলা প্রাথমিক শিক্ষা দপ্তর সূত্রে জানা গেছে, ২০২০ শিক্ষাবর্ষে পঞ্চম শ্রেণিতে ভর্তি হয়েছিল প্রায় ১৯ হাজার শিক্ষার্থী। করোনা পরিস্থিতির কারণে সব শিক্ষার্থীকেই পরবর্তী শ্রেণিতে উন্নীত বলে বিবেচনা করা হয়েছে এবং তাদেরকে প্রত্যয়নপত্রও প্রদান করা হয়েছে। শহরের উত্তর গোপালগঞ্জ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, মাদ্রাসা সংলগ্ন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, বীণাপাণি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, মালেকা একাডেমী ও এস এম মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়সহ বিভিন্ন প্রাথমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে খবর নিয়ে জানা গেছে, এসব প্রতিষ্ঠানের থেকে পাশ করে ষষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তিচ্ছু অধিকাংশ শিক্ষার্থীই একই সমস্যায় পড়েছে। এদের অধিকাংশেরই বয়স ১১+ না হওয়ার কারণে অনলাইন আবেদন গৃহীত হয়নি। এতে অনেক শিক্ষার্থীর লেখা-পড়ায় ধারাবাহিকতা ব্যাহত হতে পারে; যা তার পরবর্তী জীবনেও প্রভাব ফেলতে পারে
মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তর (মাউশি) দেশের সকল সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে অনলাইন ও এসএমএস’র মাধ্যমে ভর্তির আবেদন ও ফি প্রদান সংক্রান্ত নিয়মাবলী প্রকাশ করে। সে অনুযায়ী ১৫ ডিসেম্বর থেকে অনলাইনে ৬ষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তির আবেদন শুরু হয়। কিন্তু আবেদনে ন্যূনতম বয়সসীমা ১১+ নির্ধারিত থাকায় বয়স স্বল্পতার কারণে অধিকাংশ শিক্ষার্থীরই আবেদন গৃহীত হয়নি। এদিকে আবেদনের সময়সীমা শেষ হবে ২৭ ডিসেম্বর বিকেল ৫টা পর্যন্ত। ৩০ ডিসেম্বর অনলাইন লটারীর মাধ্যমে জানা যাবে কে কোন্্ স্কুলে ভর্তি হতে পারবে।
গোপালগঞ্জ জেলা শিক্ষা অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) খায়রুল আনাম মোঃ আফতাবুর রহমান হেলালী বলেন, জাতীয় শিক্ষানীতি-২০১০ (সংশোধিত ২০১৯) অনুযায়ী প্রথম শ্রেণিতে ভর্তির ন্যূনতম বয়স হতে হবে ৬+ বছর এবং সে অনুযায়ী ৬ষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীর বয়স হতে হবে ন্যূনতম ১১+ বছর। বয়স-স্বল্পতার কারণে এবছর অনেকে ভর্তির সুযোগ হতে বঞ্চিত হচ্ছে জেনে তিনি সংশ্লিষ্ট উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করেছেন। কিন্তু কর্তৃপক্ষ সরকারি পরিপত্রের কোন ব্যত্যয় হওয়ার সুযোগ নেই বলে জানিয়ে দিয়েছেন বলে জানান তিনি।
এবারের মত বয়সের নিয়মনীতি সিথীল রেখে তাদের কোমলমতি সন্তানেরা ষষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তি হতে পারবে, এমটাই প্রত্যাশা করে সরকার ও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে অনুরোধ জানিয়েছেন অভিভাবকগণ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*